• ২০২২ ডিসেম্বর ০২, শুক্রবার, ১৪২৯ অগ্রহায়ণ ১৮
  • সর্বশেষ আপডেট : ১:৪৮ অপরাহ্ন
  • বেটা ভার্সন
Logo
  • ২০২২ ডিসেম্বর ০২, শুক্রবার, ১৪২৯ অগ্রহায়ণ ১৮

সরকারি গোপনীয়তা লংঘনের দায়ে সু চির ৩ বছরের কারাদণ্ড

  • প্রকাশিত ২:০২ অপরাহ্ন বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর ২৯, ২০২২
সরকারি গোপনীয়তা লংঘনের দায়ে সু চির ৩ বছরের কারাদণ্ড
সংগৃহীত
নিজস্ব প্রতিবেদক

সামরিক বাহিনী শাসিত মিয়ানমারের একটি আদালত দেশটির ক্ষমতাচ্যুত নেত্রী অং সান সু চি ও তার সাবেক অর্থনৈতিক উপদেষ্টা অস্ট্রেলিয়ার নাগরিক শন টার্নেলকে তিন বছরের করে কারাদণ্ড দিয়েছে। 

এই বিচারের বিষয়ে জানেন এমন একজন বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে জানিয়েছেন, তাদের উভয়ের বিরুদ্ধে সরকারি গোপনীয়তা আইন লংঘনের অভিযোগ আনা হয়েছিল এবং দু’জনেই নিজেদের নির্দোষ দাবি করেছিলেন।

বিষয়টি স্পর্শকাতর হওয়ায় নিজের পরিচয় প্রকাশ না করে ওই ব্যক্তি বলেন, “উভয়কেই তিন বছর করে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে, তবে সশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়নি।”

রুদ্ধদ্বার আদালতে এ বিচার সম্পন্ন হয়েছে বলে জানিয়েছেন তিনি।

একই অভিযোগে সু চি ও তার অর্থনৈতিক টিমের বেশ কয়েকজন অভিযুক্ত হয়েছেন। এই অভিযোগে সর্বোচ্চ ১৪ বছর কারাদণ্ড দেওয়ার বিধান আছে।

গত বছরের ফেব্রুয়ারিতে এক অভ্যুত্থানের মাধ্যমে সু চির নির্বাচিত সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করে মিয়ানমারের সামরিক বাহিনী। তখন সু চিসহ তার সরকারের শীর্ষ পদে থাকা নেতাদের পাশাপাশি ক্ষমতাসীন দলের হাজার হাজার নেতা, কর্মীকে গ্রেপ্তার করে সামরিক জান্তা। তাদের মধ্যে রাজনীতিক, আইনপ্রণেতা, আমলা, শিক্ষার্থী ও সাংবাদিকও আছেন। 

সামরিক জান্তার বিরোধীদের কঠোর শাস্তি দিচ্ছে মিয়ানমারের আদালত। কারাদণ্ডের পাশাপাশি অনেককে মৃত্যুদণ্ডও দেওয়া হচ্ছে।

জান্তার দাবি, মিয়ানমারের আদালগুলোত স্বাধীনভাবে কাজ করছে এবং যথাযথ আইনি প্রক্রিয়া অনুসরণ করেই গ্রেপ্তারকৃতদের শাস্তি দেওয়া হচ্ছে।

সর্বশেষ