• ২০২২ অক্টোবর ০২, রবিবার, ১৪২৯ আশ্বিন ১৬
  • সর্বশেষ আপডেট : ৭:১২ অপরাহ্ন
  • বেটা ভার্সন
Logo
  • ২০২২ অক্টোবর ০২, রবিবার, ১৪২৯ আশ্বিন ১৬

সবজি-মুরগি-ডিমসহ বিভিন্ন পণ্যের বাজারদর যেমন

  • প্রকাশিত ১২:০৩ অপরাহ্ন শুক্রবার, সেপ্টেম্বর ০২, ২০২২
সবজি-মুরগি-ডিমসহ বিভিন্ন পণ্যের বাজারদর যেমন
ছবি- সংগৃহীত
নিজস্ব প্রতিবেদক

জ্বালানি তেলের দাম বৃদ্ধির অজুহাতে প্রায় সব ধরনের নিত্যপণ্যের দাম অস্বাভাবিকভাবে বৃদ্ধি পেয়েছিল। তবে এই সপ্তাহে সব ধরনের জ্বালানি তেলের দাম লিটারে ৫ টাকা কমিয়েছে সরকার। কিন্তু নিত্যপণ্যের বাজারে এর তেমন কোনো প্রভাব নেই। সপ্তাহ ব্যবধানে বেড়েছে মুরগি ও লবণের দাম। এছাড়া লিটারে ৭ টাকা বাড়ানোর পর বাড়তি দামে বিক্রি হচ্ছে ভোজ্যতেল। তবে সবজির ও মাছের দাম এই সপ্তাহে অপরিবর্তিত রয়েছে।

শুক্রবার (২ সেপ্টেম্বর) রাজধানীর বিভিন্ন কাঁচাবাজার ঘুরে এসব তথ্য জানা গেছে।

সরেজমিনে দেখা গেছে, প্রতি কেজি আলু ৩০ টাকা এবং পটল ও পেঁপে ৪০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। এছাড়া প্রতি কেজি ধুন্দল ও মিষ্টি কুমড়া বিক্রি হচ্ছে ৫০ টাকায়। প্রতি কেজি বেগুন, চিচিঙ্গা ও ঢেঁড়স ৬০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। কচুর লতি ৭০ টাকা এবং বরবটি ও করলা ৮০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। ১৬০ টাকা কেজি দরে শিম এবং ৮০ টাকা কেজি দরে শসা বিক্রি হচ্ছে। প্রতি পিস চাল কুমড়া ৫০ টাকায় ও লাউ আকারভেদে ৬০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। প্রতি হালি লেবু ১৫ থেকে ২০ টাকা এবং কাঁচকলা ৪০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

সপ্তাহের ব্যবধানে দাম কমে প্রতি কেজি কাঁচামরিচ বিক্রি হচ্ছে ১২০ টাকায় এবং শুকনা মরিচ ৪০০ থেকে ৪৫০ টাকায়।

প্রতি কেজি দেশি পেঁয়াজ ৫০ টাকা, ভারতীয় পেঁয়াজ ৪০ টাকা এবং রসুন বিক্রি হচ্ছে ৪০ থেকে ৪৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। প্রতি কেজি আদার দাম পড়ছে ৯০ থেকে ১১০ টাকা।

প্রতি কেজি খোলা চিনি ৯০ টাকা এবং প্যাকেট চিনি ৯৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। প্রতি কেজি দেশি মসুরের ডাল ১৩০ টাকা এবং ভারতীয় মসুর ডালের দাম ১০ টাকা কমে ১০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। তবে লবণের দাম বেড়ে প্রতি কেজি বিক্রি হচ্ছে ৩৮ থেকে ৪০ টাকায়।

খোলা আটা প্রতি কেজি বিক্রি হচ্ছে ৫৭ থেকে ৫৮ টাকায়। ২ কেজির প্যাকেট আটার দাম পড়ছে ১১৫ টাকা। এছাড়া বাজারে ভোজ্যতেলের দাম পড়ছে লিটারে ১৯২ থেকে ১৯৫ টাকা।

প্রতি ডজন ব্রয়লার মুরগির ডিম বিক্রি হচ্ছে ১২০ টাকা, হাঁসের ডিম ১৮০ টাকা এবং দেশি মুরগির ডিমের দাম পড়ছে ২১০ টাকা।

প্রতি কেজি ব্রয়লার মুরগি ১০ টাকা বেড়ে ১৭৫ টাকা থেকে ১৮০ টাকা, সোনালি মুরগি ৩০০ টাকা ও লেয়ার মুরগি ২৭০ থেকে ২৮০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এছাড়া বাজারে ৬৬০ থেকে ৬৮০ টাকা কেজি গরুর মাংস এবং ৯০০ টাকা কেজি দরে খাসির মাংস বিক্রি হচ্ছে।

সপ্তাহ ব্যবধানে মাছের দাম অপরিবর্তিত রয়েছে। মাছের প্রতি কেজি রুই মাছ ৩২০ থেকে ৪৫০ টাকা, তেলাপিয়া ও পাঙাশ মাছ বিক্রি হচ্ছে ১৬০ থেকে ১৯০ টাকায়। এ ছাড়া প্রতি কেজি শিং মাছ ৩৫০ থেকে ৪৬০ টাকা এবং কৈ মাছ কেজিপ্রতি ২০০ থেকে ২৫০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। প্রতি কেজি চিংড়ির দাম পড়ছে ৮০০ টাকা থেকে ১০০০ টাকা। এক কেজির একটি ইলিশের দাম পড়ছে ১৬০০ থেকে ১৮০০ টাকা।

সর্বশেষ